Our Clients

Branch Name : Rangpur,   Rangpur
Branch Code : 034

" জামানত বিহীন ক্ষুদ্র ঋণ/ বিনিয়োগ নিয়ে আজ আমি স্বাবলম্বি "

আমি শ্রী রাজ কুমার সাহা " দি ঢাকা মার্কেন্টাইল কো-অপারেটিভ ব্যাংক লিঃ " এর রংপুর শাখার একজন সফল বিনিয়োগ গ্রহিতা। আমার আগে একটি ছোট থান কাপড়ের দোকান ছিল যেখানে আমার মূলধন ছিল খুবই সামান্য। আমার স্বপ্ন ছিল ব্যবসা বড় করা নিজেকে সফল ব্যবসায়ী হিসাবে প্রতিষ্ঠিত করা। কিন্তু পুজির অভাবে ব্যবসাকে বড় করতে পারছিলাম না। এমন সময় আমার এক ব্যবসায়ী বন্ধু আমাকে " দি ঢাকা মার্কেন্টাইল কো-অপারেটিভ ব্যাংক লিঃ " এর সহজ শর্তে জামানত বিহীন ক্ষুদ্র ঋণ/ বিনিয়োগ গ্রহনের কথা বলে।
তার কথা মত আমি ফিল্ড অফিসার জনাব মোঃ নুর আলম এর সাথে কথা বলি এবং একদিন আমি রংপুর শাখায় গিয়ে শাখা ব্যবস্থাপকের কাছে আমার ব্যবসার কথা বলি। শাখা ব্যবস্থাপক আমাকে প্রথমে সহজ শর্তে ক্ষুদ্র ঋণ/ বিনিয়োগের আওতায় ৫০,০০০/- (পঞ্চাশ হাজার) টাকা প্রদান করেন। কিস্তি আকারে খুব সহজেই নিদিষ্ট সময়ের মধ্যে আমি টাকা পরিশোধে সমর্থ হই। প্রথম বিনিয়োগ পরিশোধের পর আমি আবার বিনিয়োগ গ্রহন করি। এভাবে আমি আমার ছোট থান কাপড়ের দোকানটাকে একটি বড় কাপড়ের দোকানে পরিনত করি। বর্তমান ব্যবস্থাপক জনাব ইফতেখারুল আহমেদ এর তত্ত্বাবধানে বর্তমানে আমার ১০,০০,০০০/- (দশ লক্ষ) টাকা বিনিয়োগ চলমান রয়েছে। ইতিমধ্যে আমি ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের সংখ্যা বৃদ্ধি করে বর্তমানে ০৩টি দোকানের মালিক হয়েছি। " দি ঢাকা মার্কেন্টাইল কো-অপারেটিভ ব্যাংক লিঃ " এর জামানত বিহীন বিনিয়োগ গ্রহন করে আজ আমি স্বাবলম্বি হয়েছি তাই আমি ব্যাংকের কাছে চিরকৃতজ্ঞ। আমি " দি ঢাকা মার্কেন্টাইল কো-অপারেটিভ ব্যাংক লিঃ " এর সমৃদ্ধি ও উন্নতি কামনা করছি।

Branch Name : Bogra,   Rajshahi
Branch Code : 035

" এমদাদ ট্রেডার্সের পুঁজি ডিএমসিবি "

আমি মোঃ এমদাদুল হক বগুড়া ফতেহ আলী বাজারের একজন কনফেকশনারী ব্যবসায়ী। সামান্য পুঁজি নিয়ে আমি ব্যবসা শুরু করি। কিন্তু পুঁজির অভাবে ব্যবসা ভালো চলছিল না। একদিন বগুড়া শাখার সিনিয়র ফিল্ড অফিসার জনাব মোঃ দেলোয়ার এর মাধ্যমে জানতে পারলাম যে, " দি ঢাকা মার্কেন্টাইল কো-অপারেটিভ ব্যাংক লিঃ " বগুড়া শাখা ক্ষুদ্র, সৎ ও নিষ্ঠাবান ব্যবসায়ীদের সহজ শর্তে বিনা জামানতে বিনিয়োগ দিচ্ছে।
এর পর একদিন ব্যাংকের শাখা ব্যবস্থাপক মিসেস্ তনিমা নাহিদ এর সাথে যোগাযোগ করে আমার ব্যবসায়ীক প্রয়োজনের কথা বিস্তারিত বলি। ব্যবসায়ীক প্রয়োজনে যখন আমি প্রথম ব্যংকে বিনিয়োগ নিতে যাই তখন বার বার সুদের কথা মনে হচ্ছিল কিন্তু পরে জানতে পারলাম " দি ঢাকা মার্কেন্টাইল কো-অপারেটিভ ব্যাংক লিঃ " ইসলামী শরিয়াহ্ মোতাবেক পরিচালিত হয় তা জানতে পেরে আনন্দিত হয়ে বিনিয়োগ গ্রহণ করি এবং প্রথমে ব্যবস্থাপক আমাকে ১,০০,০০০/- টাকা বিনিয়োগ প্রদান করেন। এভাবে একেরপর এক বিনিয়োগ গ্রহণ করে তার সফল ব্যবহার করে সময়মত ফেরত দেই। এরপর আমাকে আর টাকার চিমত্মা করতে হয়নি। আমার প্রয়োজনে ডিএমসিবি আমার পাশে এসে দাড়িয়েছে। আজ আমি সমাজে একজন সফল ব্যবসায়ী হিসেবে পরিচিত। আমার এই সফলতার পিছনে " দি ঢাকা মার্কেন্টাইল কো-অপারেটিভ ব্যাংক লিঃ " এর অবদান অপরিসীম। আমি এই ব্যাংকের সার্বিক সফলতা ও উন্নতি কামনা করছি।

Branch Name : Comilla,   Chittagong
Branch Code : 037

" বর্তমানে আমি পূর্বের থেকে অনেক বেশি ভাল আছি "

কুমিল্লা ষ্টেশন রোড এলাকার " পাওয়ার ব্যাটারী এন্ড ইলেকট্রিক " এর স্বত্তাধীকারী মোঃ দেলোয়ার হোসেন বলেন, দি ঢাকা মার্কেন্টাইল কো-অপারেটিভ ব্যাংক লিঃ এর সহযোগীতার কারনে আল্লাহ তাকে পূর্বের থেকে অনেক বেশী ভাল রেখেছেন।

দেলোয়ার হোসেন, কুমিল্লার ষ্টেশন রোড এলাকায় ব্যাটারী ও ইলেকট্রিক সামগ্রীর ব্যবসা করতেন। মুলধনের স্বল্পতার কারনে তিনি ছোট আকারে ব্যবসা শুরু করেছিল। কিন্তু পুঁজির অভাবে যখন তিনি ব্যবসা বড় করতে পারছিলেন না, একদিন কুমিল্লা শাখার ফিল্ড কর্মকর্ত মোঃ আরিফ হোসেনের মাধ্যমে জানতে পারেন দি ঢাকা মার্কেন্টাইল কো-অপারেটিভ ব্যাংক লিঃ সহজ শর্তে বিনা জামানতে বিনিয়োগ প্রদান করে। তিনি তখন ফিল্ড কর্মকর্তার কথামত ব্যাংকটির শাখা ব্যবস্থাপক মোঃ আবু তারিক খানের সঙ্গে দেখা করেন এবং ব্যবস্থাপক তাকে ২০০৭ইং সালে প্রথমত পঞ্চাশ হাজার টাকা বিনিয়োগ প্রদান করেন। তিনি মোট বিনিয়োগ গ্রহন করেন ১১বার। তার সর্বশেষ বিনিয়োগের পরিমান চার লক্ষ টাকা। ডিএমসিবিএল বিপদের সময় তার পাশে দাঁড়িয়ে তাকে সহযোগীতার কারনে তিনি তার জীবনের পরিবর্তন ঘটাতে পেরেছেন এজন্য তিনি ব্যাংকটির দীর্ঘায়ু ও মঙ্গল কামনা করেন।

Branch Name : Moulvibazar ,   Sylhet
Branch Code : 040

" স্বপ্ন বাস্তবায়নের পথে "

মৌলভীবাজার শহরের সেন্ট্রাল রোডের ব্যবসায়ী স্কয়ার টেইলার্সের মালিক হোসাইন সরকার বলেন জীবনের সকল ক্ষেত্রেই টিকে থাকার জন্য প্রয়োজন একটি অবলম্বন। ‘‘দি ঢাকা মার্কেন্টাইল কো-অপারেটিভ ব্যাংক লিঃ’’ আমার ব্যবসায়িক সফলতার ক্ষেত্রে অন্যতম অবলম্বন।
সহজ শর্তে আর্থিক সহযোগিতার ধারাবহিকতায় আমার সপ্ন এখন বাস্তবায়নের পথে। এজন্য আমি ব্যাংকের প্রতি অত্যমত্ম কৃতজ্ঞ। পূর্বে আমার ছোট একটি টেইলারিং এর দোকান ছিল। ২০০৮ সালে ব্যাংকের ফিল্ড অফিসার জনাব উজ্জ্বল কানু এর সহযোগীতায় ব্যবস্থাপক জনাব মোঃ মনিরুল ইসলাম প্রথম ৪০,০০০/- টাকা বিনিয়োগ দেন। উন্নয়নের চলমান ধারায় বর্তমানে আমি আরও একটি ব্যবসা প্রতিষ্ঠান করেছি। বর্তমানে আমি ৫,০০,০০০/- টাকার বিনিয়োগ গ্রহন করেছি। আজ আমি সমাজে সফল ব্যবসায়ী। আমি আশাবাদী যে সততা ও নিষ্ঠার সাথে আমি এগিয়ে যাব। আমি এই ব্যাংকের চলার পথ কুসুমাস্তীর্ন হোক সেই দোয়া কামনা করি।

< Prev12345678910111213Next